প্রচ্ছদ > জেলা সংবাদ > ঢাকা

আমের লোভ দেখিয়ে তিন বছরের শিশুকে ধর্ষণ

http://www.cpinews24.com | 01 June, 2018
img

লক্ষ্মীপুর সংবাদদাতা : লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে আম খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে তিন বছরের শিশুকে (সানজিদা) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে সায়েদ উল্যা নামের এক পান ব্যাপারীর বিরুদ্ধে।

ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার সকাল ৮টার দিকে কমলনগর উপজেলার মুন্সির হাটের চর মার্টিন গ্রামে। পরে পরিবারের লোকজন শিশুটিকে রক্তাক্ত ও মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। তবে শিশুটির অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎকরা।

অভিযুক্ত ধর্ষক সায়েদ উল্যা উপজেলার কাদির পণ্ডিতের হাট এলাকার শাহজাহানের ছেলে এবং চর মার্টিন গ্রামের ওই বাড়ির জামাতা। সে ক্ষতিগ্রস্ত শিশুকন্যার সম্পর্কে ফুফা হয়।

ভিকটিমের মা (শাহনাজ) ও পরিবার সূত্র জানান, সায়েদ উল্যা চর মার্টিন গ্রামে আবুল বাশারের মেয়েকে বিয়ে করে ঘরজামাই হিসেবে শশুর বাড়িতে বসবাস করে আসছিল। সকালে ওই বাড়িতে তিন বছরের শিশু তার মায়ের সাথে দাদার বাড়ি যায়। তার বাবাও কাজে বের হয়ে যান। এ সুযোগে ঘটনার দিন সকালে আম খাওয়ানোর কথা বলে পার্শ্ববর্তী ঘরে নিয়ে সায়েদ (ফুফা) শিশুটিকে ধর্ষণ করে। এতে শিশু রক্তাক্ত হয়ে চিৎকার শুরু করলে দাদি ঘটনাটি দেখে ফেলেন। এ সময় ধর্ষক পালিয়ে যায়। পরে পরিবারের লোকজন রক্তাক্ত ও গুরুতর আহত অবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে এনে ভর্তি করে। শিশুটির রক্তে চাচার পরনের কাপড়-চোপড় ভিজে যায়।

সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার ডা. আনোয়ার হোসেন জানান, মুমুর্ষু অবস্থায় অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ নিয়ে একটি শিশুকে হাসপাতালে নিয়ে আসার পর তাকে দ্রুত ভর্তি করা হয়েছে। এটি ধর্ষণের ঘটনা। এ ঘটনা পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে। তবে শিশু রোগীর অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

কমলনগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইকবাল হোসেন জানান, স্থানীয়দের নিকট শিশু ধর্ষণের বিষয় অবহিত হয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় এখনো মামলা হয়নি। তবে তদন্ত করে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।